গুলঞ্চ গাছের উপকারিতা । Benefits of Giloy in Bengali

Share With

গুলঞ্চ গাছের উপকারিতা। Benefits of Giloy in Bengali.

প্রাচীনকাল থেকেই  গুলঞ্চ গাছ ( giloy ) আয়ুর্বেদিক ওষুধে ব্যাপকভাবে ব্যবহৃত হয়। গুলঞ্চ গাছের মধ্যেই আছে বিভিন্ন স্বাস্থ্য সমস্যার সমাধান । ওষুধের নানান বৈশিষ্ট্যগুলি থাকার কারণে, গুলঞ্চ  যুগে যুগে ভারতীয় চিকিৎসা শাস্ত্রে ব্যবহৃত হয়ে আসছে। প্রায়ই সকলের রোগ নিরাময় করতে গুলঞ্চ লতা ব্যবহার করা হয়।

শুনলে অবাক হবেন যে সংস্কৃতে এটিকে “অমৃত” বলা হয়ে থাকে যার অর্থ “অমরত্ব সুধা” ।

আদিতে ভারতীয় উপমহাদেশে পাওয়া যেত গুলঞ্চ গাছ। শ্রীলঙ্কা, চীন, ভারত, বাংলাদেশ, মায়ানমার এবং দক্ষিণ এশিয়ার অন্যান্যও দেশে পাওয়া যায়।

বৈজ্ঞানিক নাম:  টিনোস্পোরা কর্ডিফোলিয়া।

সাধারণ নাম: গিলয়, গুলঞ্চ, গুড়ুচি, গুলবেল, হার্ট-লিভড মুনসিড (heart leaf moonseed), টিনোস্পোরা।

সংস্কৃত নাম : অমৃত, তন্ত্রিকা, কুণ্ডলিনী, চক্রলক্ষ্মীণি।

 

গুলঞ্চ গাছের উপকারিতা – Benefits of Giloy in Bengali

Benefits of Giloy in Bengali

  • রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা

শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে গুলঞ্চ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। এতে শক্তিশালী অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট থাকে যা রক্তকে বিশুদ্ধ করে, টক্সিনগুলি সরায় এবং রোগসৃষ্টিকারী ব্যাকটিরিয়ার ও ফ্রি-রেডিক্যালগুলির বিরুদ্ধে লড়াই করে। হৃদরোগ, মূত্রসংক্রান্ত নানান রোগ প্রতিরোধে এর যথেষ্ট কার্যকারিতা রয়েছে।

  • ওজন কমাতে গিলয়

গিলয় হাইপোলিপিডেমিক হিসাবে কাজ করে বলে নিয়মিত সেবন করলে ওজন কমানোর ক্ষেত্রে চমৎকার কাজ দেয়। শরীরের পরিপাক প্রক্রিয়ার উন্নতি ঘটাতে সাহায্য করে এবং যক্কৃৎ রক্ষা করে।

  • ক্রনিক জ্বর নিরাময়ে

দীর্ঘস্থায়ী জ্বরের চিকিৎসার জন্য চিরাচরিতভাবে গিলয় ব্যবহার হয়। বিভিন্ন প্রাণীর ওপর প্রয়োগ করে গুলঞ্চের অ্যান্টিপাইরেটিক কার্যকারিতার প্রমাণ পাওয়া গিয়েছে ।  গিলয় ইমিউনোমডিউলেটরি প্রক্রিয়া করে এবং তার অ্যান্টিবায়োটিক উপাদান আছে। ডেঙ্গি জ্বরের মতো জীবাণুর সংক্রমণের হাত থেকে এটি রক্ষা করে।

  • ডায়বিটিসের প্রতিরোধে:

গিলয় আমাদের রক্তে গ্লুকোজ স্তর সংশোধন করে। এটি ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য খুব উপকারী মনে করা হয়। এটি শরীরে অক্সিডেটিভ স্ট্রেস কম করে, প্রাকিতিক ইনসুলিন ক্ষরণ বাড়ায়। ইনসুলিনের প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে সক্ষম হয় বলে ডায়বিটিসের ক্ষেত্রে এটি কার্যকরী হয়।

  • শ্বাসকষ্ট রুখতে

দেখা গিয়েছে, দীর্ঘস্থায়ী কাশি, অ্যালার্জিক রাইনাইটিস-এর চিকিৎসায় গিলয় কার্যকরী ভূমিকা নেয় এবং হাঁপানি বা অ্যাজমার উপসর্গ কমানোর ক্ষেত্রেও এটি কাজে লাগে।

  • মহিলাদের জন্য

মহিলাদের ক্ষেত্রে গিলয় দারুণ উপকারী। বিশেষ করে মেনোপজের পর। সেই সময় শরীরে নানা সমস্যা তৈরি হয়। গিলয় মধ্যে অ্যান্টি অক্সিড্যান্ট থাকে। যা এই সময় খুবই কাজে দেয়। অস্টিওপোরোসিস অর্থাৎ হাড়ের ক্ষয় রুখতেও কার্যকরী এই পাতা।

  • পুরুষদের জন্য

গিলয়এর ব্যবহারে বীর্যধারণ ক্ষমতা বৃদ্ধির সঙ্গে পুরুষদের যৌন ক্ষমতা বা ইচ্ছা বৃদ্ধি পায়। যেসব পুরুষ দের low libido লক্ষণ আছে তারা এটি সেবন করতে পারেন।

  • ক্যান্সারের প্রতিরোধে

কয়েকটি সমীক্ষায় দেখা গিয়েছে, গুলঞ্চের অ্যান্টি অক্সিডেন্ট উপাদানের জন্য গুলঞ্চের ব্যবহার করা যেতে পারে।

  • মানসিক স্বাস্থ্যের জন্য

মানসিক চাপ কমাতে স্ট্রেস বা মানসিক চাপ এবং উদ্বেগ কমাতে গিলয় কার্যকর। এটি মস্তিষ্কের স্মৃতিশক্তি বৃদ্ধি করে ও চিন্তাভাবনা স্থীর করে মানসিক চাপ কমাতে ভূমিকা রাখে।

  • হজমশক্তির উন্নতির জন্য

হজমশক্তি উন্নতির জন্য এটি অত্যন্ত কার্যকর একটি ভেষজ। পেটের নানা ধরনের সমস্যার চিকিৎসায় এ ভেষজ ব্যবহৃত হয়। এক্ষেত্রে আধ গ্রাম গিলয় পাউডার কিছুটা আমলকির সঙ্গে মিশিয়ে সেবন করতে হবে। এছাড়া কোষ্টকাঠিন্য সমস্যায় এটি সামান্য গুড়ের সঙ্গে মিশিয়ে খেতে হবে।

আরো পড়ুন – অস্বগন্ধার স্বাস্থ্য উপকারিতা। Ashwagandha Health Benefits In Bengali

মন্তব্য করুন